জুলাই / ২৯ / ২০২১ ১০:৩২ অপরাহ্ন

বিনোদন ডেস্ক

জুলাই / ১৭ / ২০২১
১২:১১ অপরাহ্ন

আপডেট : জুলাই / ২৯ / ২০২১
১০:৩২ অপরাহ্ন

অল্প বয়সে বিয়ে করাটা ভুল ছিল



27

Shares

মধুমিতা সরকারকে পাখি নামেই সবাই চেনেন তাকে। স্টার জলসার জনপ্রিয় ধারাবাহিক ‘বোঝেনা সে বোঝেনা’তে ওই চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন তিনি। সেই জনপ্রিয়তার সুবাদে মধুমিতা দর্শকদের মনে পাখি নামে জায়গা করে নেন। ব্যক্তিগত জীবনে মধুমিতা বিয়ে করেছিলেন অভিনেতা সৌরভ চক্রবর্তীকে। ২০১৫ সালে তাদের বিয়ে হয়। চার বছর সংসার করার পর ২০১৯ সালে তারা বিবাহবিচ্ছেদ করেন।

বিয়ের সময় মধুমিতার বয়স ছিল ২১ বছর। ওই বয়সে বিয়ে করাটাই ভুল ছিল বলে মনে করেন অভিনেত্রী। সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, ‘খুব অল্প বয়সে বিয়ে করাটা ভুল ছিল। যদি তাড়াহুড়ো করে বিয়েটা না করতাম, তাহলে ক‌্যারিয়ারে আরো বেশি ফোকাস করতে পারতাম। তবে প্রাক্তন স্বামী সৌরভের সঙ্গে কাটানো সময়টা নিয়ে তার আফসোস নেই বলেও জানালেন মধুমিতা। তার ভাষ্য, ‘আমাদের কিছু ভালো স্মৃতি রয়েছে। ওর সঙ্গে কাটানো মুহূর্তগুলো নিয়ে আমার কোনো আফসোস নেই।

ভালোবেসেই বিয়ে করেছিলেন সৌরভ ও মধুমিতা। এরপরও কেন ভেঙে গেছে তাদের সংসার? এমন প্রশ্নের জবাবে অভিনেত্রী বলেন, ‘হয়তো আমাদের গুরুত্বটা আলাদা ছিল; তবে সঠিক বলতে পারব না। আমি খুব রোমান্টিক মানুষ। একদম খাদের কিনারায় না চলে যাওয়া পর্যন্ত সম্পর্কটা টিকিয়ে রাখার চেষ্টা করেছিলাম। এখন মনে হয় বিয়েটা ভেঙে আরো আগে বেরিয়ে আসা উচিৎ ছিল।

এদিকে কিছুদিন আগেই সৌরভ জানান,  মধুমিতার সঙ্গে সংসার করতে পারেননি। তাই এখন আর কোনো কাজও করতে চান না। কাজ করাটা অস্বস্তিকর হবে বলে মনে করেন তিনি। তবে মধুমিতার ধারণা ভিন্ন। তার ভাষ্য, ‘সৌরভের প্রতি যে অনুভূতিগুলো ছিল, এখন তা হারিয়ে গেছে। তাই পেশাদার অভিনেত্রী হিসেবে সৌরভের মতো একজন মেধাবী অভিনেতার সঙ্গে কাজ করতে আমার কোনো অসুবিধা হবে বলে মনে হয় না।

বিনোদন ডেস্ক

জুলাই / ১৭ / ২০২১
১২:১১ অপরাহ্ন

আপডেট : জুলাই / ২৯ / ২০২১
১০:৩২ অপরাহ্ন

বিনোদন