সেপ্টেম্বর / ২৮ / ২০২১ ০১:৩৪ অপরাহ্ন

জৈন্তা বার্তা ডেস্ক

জুলাই / ২৬ / ২০২১
০৯:০৪ অপরাহ্ন

আপডেট : সেপ্টেম্বর / ২৮ / ২০২১
০১:৩৪ অপরাহ্ন

সিলেট সিটি কর্পোরেশনের সীমানা বর্ধনে মহানগর আ‘লীগের অভিনন্দন



48

Shares

সিলেট সিটি কর্পোরেশনের সীমানা দ্বিগুণের চেয়ে বেশি বর্ধিত হওয়ায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা ও মাননীয় পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ.কে আব্দুল মোমেন সহ সংশ্লিষ্ট সকল কর্মকর্তাবৃন্দকে অভিনন্দন জানিয়েছেন সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মাসুক উদ্দিন আহমদ ও সংগ্রামী সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক মোঃ জাকির হোসেন।

২৬ জুলাই রোজ সোমবার, প্রশাসনিক পুনর্বিন্যাস সংক্রান্ত জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটির বৈঠকে এ অনুমোদন দেয়া হয়। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। এই অনুমোদনের মধ্যদিয়ে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে এ মোমেন এমপির দীর্ঘদিনের পরিকল্পনা বাস্তবায়িত হলো। ২০১৫ সাল থেকে তিনি সিলেট সিটি কর্পোরেশনের এলাকা বর্ধিত করার জন্য  নিরলসভাবে প্রচেষ্টা চালিয়ে আসছিলেন।

গত বছরের আগস্ট মাসে জেলা প্রশাসন সিটি কর্পোরেশনের নতুন অন্তর্ভুক্ত এলাকার তালিকা প্রকাশ করে একটি গণবিজ্ঞপ্তি জারি করে। জেলা প্রশাসন থেকে জারিকৃত বিজ্ঞপ্তিতে সিটি কর্পোরেশনের আওতাভুক্ত করা হয়েছে সিলেট সদর উপজেলার চারটি ও দক্ষিণ সুরমা উপজেলার তিনটি ইউনিয়নের বেশ কিছু মৌজা। তন্মধ্যে রয়েছে সিলেট সদর উপজেলার টুকের বাজার ইউনিয়নের কুমারগাঁও, মইয়ার চর (দাগ নম্বর ৭৭, ৮২, ৮৩, ৮৯, ৯০, ৯১ ছাড়া), খুরুমখলা শাহপুর, আখালিয়া, খাদিমনগর ইউনিয়নের কুমারগাঁও, খাদিমপাড়া ইউনিয়নের সাদিপুর প্রথম খন্ড, টিলাগড়, দেবপুর, কসবা কুইটুক, সুলতানপুর চক, পেশনেওয়াজ, টুলটিকর ইউনিয়নের সাদিপুর প্রথম খন্ড, টিলাগড় ও দেবপুর। দক্ষিণ সুরমার কুচাই ইউনিয়নের হবিনন্দি, মণিপুর, আলমপুর, গোটাটিকর, বরইকান্দি ইউনিয়নের পিরিজপুর, ধরাধরপুর, বরইকান্দি, গোধরাইল এবং তেতলী ইউনিয়নের ধরাধরপুর, বরইকান্দি (অবশিষ্টাংশ), বলদী (কয়েকটি দাগ) মৌজাগুলো নতুন করে সিলেট সিটির অন্তর্ভুক্ত করার প্রস্তাব দেয়া হয়। নতুন আওতাভুক্ত অধিকাংশ এলাকা নিয়ে কারও কোনো আপত্তি না থাকায় সিটি এলাকা বর্ধিত করার প্রস্তাব বাস্তবায়নের জন্য উপস্থাপন করা হয়।

অনুমোদনকৃত সিটি কর্পোরেশনের এলাকা পূর্বের ২৬.৫ বর্গ কিলোমিটার থেকে বর্তমানে দাঁড়িয়েছে প্রায় ৬০ বর্গ কিলোমিটার। ২৭টি ওয়ার্ড থেকে ৫২টি ওয়ার্ডে এর আয়তন দাঁড়িয়েছে। মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাধারণ বলেন , সিটি কর্পোরেশনের আয়তন বৃদ্ধি পাওয়ায় সেবার পরিধিও বাড়বে। জীবনযাত্রার মান উন্নত হবে। এই সেবার আওতায় আসবে বর্তমানের চেয়ে দ্বিগুণের বেশি মানুষ। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা ও পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ. কে আব্দুল মোমেনের প্রতি নেতৃবৃন্দ মহানগর আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে  কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন।

জৈন্তা বার্তা ডেস্ক

জুলাই / ২৬ / ২০২১
০৯:০৪ অপরাহ্ন

আপডেট : সেপ্টেম্বর / ২৮ / ২০২১
০১:৩৪ অপরাহ্ন

রাজনীতি